নবান্ন স্কলারশিপ | মুখ্যমন্ত্রী ত্রাণতহবিল ২০২৩

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে শিক্ষার জন্য আর্থিক সাহায্য পেতে পারেন অসচ্ছল পরিবারের ছাত্রছাত্রীরা। এই তহবিল থেকে মূলত সরকারি সাহায্য না পাওয়া ছাত্রছাত্রীদেরকেই সাহায্য করা হয়। তবে এই তহবিল থেকে সাহায্য পেতে কিছু শর্ত পূরণ করতে হবে।

কী কী শর্ত?

  • ছাত্রছাত্রীদের পশ্চিমবঙ্গের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
  • ছাত্রছাত্রীদের পশ্চিমবঙ্গের কোনও সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত বিদ্যালয় বা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে হবে।
  • ছাত্রছাত্রীদের পরিবারের বার্ষিক আয় ১,২০,০০০ টাকার বেশি হতে পারবে না।
  • ছাত্রছাত্রীদের অন্য কোনও সরকারি (কেন্দ্রীয়/রাজ্য) বৃত্তি বা সাহায্য না পেয়ে থাকতে হবে।

কী কী কাগজপত্র লাগবে?

  • ছাত্রছাত্রীর আবেদন ফর্ম (অনলাইনে পাওয়া যায়)।
  • ছাত্রছাত্রীর সাম্প্রতিক রঙিন পাসপোর্ট আকারের ছবি।
  • ছাত্রছাত্রীর পরিবারের বার্ষিক আয়ের সনদ।
  • ছাত্রছাত্রীর পূর্ববর্তী শিক্ষাবর্ষের সনদপত্র।
  • ছাত্রছাত্রীর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সনদপত্র।

কীভাবে আবেদন করবেন?

ছাত্রছাত্রীদের মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলের ওয়েবসাইটে (https://cmrf.wb.gov.in/) গিয়ে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। আবেদনের সময় উপর্যুক্ত কাগজপত্রগুলি আপলোড করতে হবে। আবেদন জমা দেওয়ার পরে ছাত্রছাত্রীদের একটি রেজিস্ট্রেশন নম্বর দেওয়া হবে। এই নম্বরটি ব্যবহার করে ছাত্রছাত্রীরা তাদের আবেদনের স্ট্যাটাস দেখতে পারবেন।

কীভাবে সাহায্য পাওয়া যায়?

মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে সাহায্য পেতে ছাত্রছাত্রীদের আবেদনপত্র যাচাই করা হয়। যদি আবেদনপত্রটি সঠিকভাবে পূরণ করা হয় এবং ছাত্রছাত্রীরা সব শর্ত পূরণ করেন, তাহলে তাদেরকে অর্থ প্রদান করা হয়। অর্থটি ছাত্রছাত্রীদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সরাসরি জমা দেওয়া হয়।

সাহায্যের পরিমাণ কত?

মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে ছাত্রছাত্রীদের যে পরিমাণ অর্থ দেওয়া হয়, তা তাদের শিক্ষার ধাপের উপর নির্ভর করে। উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের ছাত্রছাত্রীদের বছরে ১০,০০০ টাকা করে সাহায্য দেওয়া হয়। স্নাতক পর্যায়ের ছাত্রছাত্রীদের বছরে ১২,০০০ টাকা করে সাহায্য দেওয়া হয়। আর স্নাতকোত্তর পর্যায়ের ছাত্রছাত্রীদের বছরে ১৫,০০০ টাকা করে সাহায্য দেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Call Now Button